find my device

ফোন চুরি বা হারিয়ে গেলে আর্থিক তথ্য সুরক্ষার কৌশল

তথ্যপ্রযুক্তি বাংলাদেশ
ফোন চুরি হয়ে যাওয়া মানে শুধু আর্থিক ক্ষতি নয়, স্মার্টফোনে থাকা মানুষের কর্মক্ষেত্র ও ব্যক্তিগত জীবনের গোপনীয় সকল তথ্যও মারাত্মক ঝুকির মধ্যে থাকা। আজকাল কমবেশি প্রায় সবাই ফোনের মাধ্যমে বিভিন্ন লেনদেন করে থাকে। সেই সঙ্গে সৃষ্টি হচ্ছে নানা ধরনের ঝুঁকিপূর্ণ পরিস্থিতির। যে স্মার্টফোন দিয়ে আপনি ডিজিটাল পেমেন্ট করে থাকেন, সেই ফোন যদি কখনো চুরি হয়ে যায় বা হারিয়ে যায় তাহলে কিছু অসৎ মানুষের নিয়ন্ত্রণে চলে যেতে পারে আপনার আর্থিক লেনদেনের সকল তথ্য এবং ব্যক্তিগত জীবনের গোপনীয় নানা ধরনের তথ্য।
সেজন্য ফোন হারিয়ে গেলে অথবা চুরি হয়ে গেলে আর্থিক তথ্য সুরক্ষার কিছু কৌশল জেনে রাখতে পারেন-

 

সুরক্ষিত রাখুন সোশ্যাল মিডিয়ার সকল অ্যাকাউন্ট: বিশেষজ্ঞরা বলেন, সোশ্যাল মিডিয়ায় আপনার আর্থিক লেনদেন সম্পর্কিত তথ্যের গোপনীয়তার জন্য ‘প্রাইভেসি চেক-আপ’ ব্যবহার করা যায়। আপনি যে ডিভাইস বা ব্রাউজার দিয়ে সোশ্যাল মিডিয়া ব্যবহার করে থাকেন, সেগুলো সুরক্ষিত রাখুন। কারণ সেখান থেকেও আর্থিক লেনদেনের তথ্য বেহাত হওয়ার সম্ভাবনা থাকে।

 

ব্লক করে দিম সিম কার্ড: আপনার সিম কার্ডের ভেতর অনেক ধরনের তথ্য রয়েছে। কোথায় কার সঙ্গে লেনদেন করছেন, হারিয়ে,যাওয়া সিম থেকে সে ব্যাপারে অজ্ঞাত মানুষেরা জেনে যেতে পারেন। তাই স্মার্টফোন হারিয়ে গেলে সবার আগে সিম কার্ড ব্লক করে দেয়া উচিত। এতে তথ্য বেহাত হওয়ার ঝুঁকি থেকে আপনি সুরক্ষিত  থাকতে পারেন।

 

সাধারণ ডায়েরি করে রাখুন: যেখান থেকে আপনার ফোন হারিয়ে গেছে অথবা চুরি হয়েছে সেখানে অবস্থিত থানায় সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করে রাখুন। এতে আপনার আইনী নিরাপত্তা একটু হলেও বেড়ে যাবে।

 

ব্যাংকে গিয়ে ফোন নাম্বার পাল্টান: যিনি আপনার ফোন চুরি করেছেন, তিনি আপনার নাম্বার ব্যবহার করে ব্যাংকে রাখা টাকা আত্মসাৎ করে ফেলতে পারেন। তাই যত দ্রুত সম্ভব ব্যাংকে গিয়ে আপনার ফোন নাম্বার পাল্টে ফেলুন। একই সঙ্গে ব্যাংকে আপনার অ্যাকাউন্টের সকল পাসওয়ার্ড রিসেট করার আবেদন করুন এবং সম্ভব হলে ব্যাংক লেনদেন স্থগিত করে রাখুন। এতে করে আপনার ব্যাংক অ্যাকাউন্ট সুরক্ষিত থাকবে। আপনিও নিশ্চিন্ত থাকবেন।

 

জেনে রাখবেন, Find my phone অপশনটি কেবল ফোন চালু থাকলে এবং তাতে ইন্টারনেট সংযোগ চালু থাকলে তখনি কাজ করবে। তাই যারা হুটহাট করে ফোন হারিয়ে ফেলেন, তারা গুগল অ্যাকাউন্ট দিয়ে ফোনে লগইন করে রাখার সাথে সাথে ইন্টারনেট সংযোগের আওতায় থাকবেন এবং লোকেশন ও ফাইন্ড মাই ডিভাইস অপশন অন করে রাখবেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.